মোট দেখেছে : 242
প্রসারিত করো ছোট করা পরবর্তীতে পড়ুন ছাপা

‘রাজনৈতিক নেতাদের কারণেই ইজিবাইক বন্ধ করা যাচ্ছে না : ওবায়দুল কাদের

‘রাজনৈতিক নেতাদের মদদ থাকার কারণেই সড়ক ও মহাসড়ক থেকে ইজিবাইক ও ব্যাটারিচালিত যানবাহনগুলো বন্ধ করা যাচ্ছে না। সড়ক ও মহাসড়কে দুর্ঘটনার জন্য এসব থ্রি হুইলার যানবাহনও অন্যতম দায়ী বলেছেন,  সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের ।

আজ মঙ্গলবার সচিবালয়ে বিশিষ্ট নাগরিকদের সঙ্গে আয়োজিত এক বৈঠকে এসব কথা বলেন ওবায়দুল কাদের।  

সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘ছাত্রদের আন্দোলনের কারণেই আমরা সড়ক পরিবহন আইনটি দ্রুত করতে বাধ্য হয়েছি। ছাত্র আন্দোলনের এটি অবশ্যই একটি ভালো দিক। সংসদের আগামী অধিবেশনেই আশা করছি আইনটি পাস হবে। আইনটি কার্যকর হলে সড়ক মহাসড়কে দুর্ঘটনা অনেক কমে আসবে। চালক, মালিক ও শ্রমিকরা আরো বেশি সচেতন হবে।’

মতবিনিময় অনুষ্ঠানে স্থপতি মোবাশ্বের হোসেন বলেন, ‘সড়ক- মহাসড়ক ও পরিবহনখাতে শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে হলে শুধু আইন করলেই হবে না। আইন মানার প্রতি সবাইকে উদ্বুদ্ধ করতে হবে। আমাদের দেশের লোকগুলোই যখন বিদেশে যায় তখন শতভাগ আইন মেনে চলে। কিন্তু দেশে আইন মানার বিষয়ে আমাদের অনেক অনীহা। কাজেই আইন প্রয়োগের উপযুক্ত পরিবেশও তৈরি করতে হবে।’

নিরাপদ সড়ক চাই আন্দোলনের চেয়ারম্যান ইলিয়াস কাঞ্চন বলেন, ‘আইনে সর্বোচ্চ সাজা ১০ বছর করলে আইনটি টেকসই হবে।’ আইনটি পাস করার আগে এটি নিয়ে আরো যাচাই বাছাই করার করার পরামর্শ দেন ইলিয়াস কাঞ্চন। মতবিনিময় অনুষ্ঠানে সাংবাদিক ও কলামিস্ট সৈয়দ আবুল মকসুদসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ বক্তব্য দেয়।

(সৃষ্টি ডেস্ক)